ইসলাম কি বলে ? ঘুষের টাকায় চাকুরীর, আয় হালাল নাকি হারাম হবে ??

আমরা অনেকেই চাকরি পাওয়ার উদ্দেশ্যে ঘুষ ব্যবহার করে থাকি। তবে ঘুষের টাকায় হওয়া চাকরির প্রাপ্ত বেতন আমাদের জন্য আদৌও হালাল না হারাম তা নিয়ে অকনেকেই সংশয়ে থাকি। আসুন জেনে নেই ঘুষের টাকায় চাকরির বেতন আপনার জন্য কতটুকু কার্যকরী। ঘুষের টাকার চাকরি, আয় হালাল নাকি হারাম?

প্রথমত ঘুষ দেওয়াটাই হারাম। ঘুষ দেওয়ার পর আপনি যে চাকরিটা নিয়েছেন সেখানে দুইটি বিষয় হতে পারে। একটা হচ্ছে চাকরিটা পাওয়ার জন্য আপনি যোগ্য ছিলেন, কিন্তু ঘুষ না দেওয়ার জন্য চাকরিটা হচ্ছে না। সেক্ষেত্রে ঘুষ দিয়ে চাকরি পেলে আপনার চাকরিটা জায়েজ হবে। কিন্তু ঘুষ দেওয়াটা নাজায়েজ হবে। আবার চাকরির জন্য যোগ্য না হওয়ার পরও যদি ঘুষ দিয়ে চাকরি নেন, তাহলে পুরো জীবনে যা উপার্জন করেছেন তার সবটাই হারাম হবে।

নেইমার রিয়াল মাদ্রিদে পাড়ি জমাতে যাচ্ছেন ..!! ৪১০০ কোটি টাকায় ছাড়বে পিএসজি

রিয়ালের হারের পর নেইমারকে হারানোর ভয় আবার জাগ্রত পিএসজি শিবিরে। ফরাসি ক্লাবটির ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার মারকুইনহোস নিজেই ইঙ্গিত দিয়েছেন, নেইমারকে ধরে রাখার বিষয়ে এখন শঙ্কিত পিএসজি। নেইমার রিয়াল মাদ্রিদে পাড়ি জমাতে পারেন, এই বিশ্বাসই নাকি এখন ঘুরে ফিরছে পিএসজির অন্দরমহলে। মারুকইনহোসের সেই ইঙ্গিতের ধারাবাহিকতায় মানু সেইঞ্জ দিলেন আরও গরম খবর।

স্প্যানিশ ক্রীড়া দৈনিক এএস-এর এই ফুটবল লেখকের দাবি, নেইমারের সঙ্গে সম্ভাব্য চুক্তির বিষয়ে অনেক দূর এগিয়ে গেছে রিয়াল। গত মঙ্গলবার দুই দলের চ্যাম্পিয়ন্স লিগ দ্বৈরথকে সামনে রেখে রিয়াল মাদ্রিদের অধিকাংশ কর্তাই নাকি উড়ে গিয়েছিলেন প্যারিসে।

পিএসজি কর্তারা নাকি এটাও বুঝে গেছে, তাদের ‘সোনার ডিম পাড়া হাস’ নেইমারকে নিয়েই ছাড়বে রিয়াল। রিয়ালের আগ্রহের মাত্রা বুঝে পিএসজি কর্তারাও তাই হাঁকিয়ে বসেছে নেইমারের চড়া দাম। মানু সেইঞ্জ তার কলামে পিএসজির প্রত্যাশিত অঙ্কটাও উল্লেখ করেছেন। পিএসজি নাকি নেইমারের উপর ঝুলিয়ে দিয়েছে ৪০০ মিলিয়ন ইউরোর প্রাইস-ট্যাগ!

না, নেইমারের উপর নতুন করে রিলিজ ক্লজ ঝুলিয়ে দেয় পিএসজি। এর মাধ্যমে পিএসজি রিয়ালকে বুঝিয়ে দিয়েছে, নেইমারকে নিতে হলে অন্তত ৪০০ মিলিয়ন ইউরো ( বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৪১০০ কোটি টাকা) লাগবে!