অবসর ভেঙে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরছেন বুমবুম আফ্রিদি …!!

সবশেষ ২০১৬ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের পর চূড়ান্তভাবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানান বুমবুমখ্যাত এ তারকা।

চিরশত্রু ভারতে অনুষ্ঠিত ওই আসরে তার নেতৃত্বে পাকিস্তানের চরম ভরাডুবি ঘটলে তীব্র সমালোচনার মুখে এ সিদ্ধান্ত নেন তিনি। সম্প্রতি ফের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফেরার ইঙ্গিত দিয়েছেন এ তারকা। আফ্রিদিকে বিদায়ী সংবর্ধনা দেয়ার কথা ভাবছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। সময় ও সুযোগ বুঝে তাকে বিদায়ী ম্যাচ খেলিয়ে ভালোভাবে গুডবাই জানাতে চায় বোর্ড, প্রস্তুতিও নিচ্ছে।

পিসিবি চেয়ারম্যান নাজাম শেঠি বলেন, আমাদের কাছে আফ্রিদি কোনো ইস্যু নয়। পাকিস্তান ক্রিকেটকে দীর্ঘসময় সেবা দেয়ার জন্য তাকে ধন্যবাদ। সময়সাপেক্ষে ওকে যথাযোগ্য মর্যাদায় বিদায় জানানো হবে। পাকিস্তান বোর্ডের এমন সিদ্ধান্তে রাজিও নাকি হয়েছিলেন আফ্রিদি! তবে এখন অবস্থান পাল্টেছেন তিনি। ফের ফিরতে চান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে।

রোববার পেশোয়ারে গণমাধ্যমে তিনি বলেন, পাকিস্তানের হয়ে ২০ বছর ক্রিকেটে খেলেছি, পিসিবির জন্য নয়। আমি কেবল একটি ম্যাচ খেলার জন্য মুখিয়ে নেই। ভক্ত-সমর্থকদের কাছ থেকে যে ভালোবাসা ও সমর্থন পেয়েছি তাই আমার জন্য বড় পুরস্কার।

ব্যাট হাতে যেমন বোলারদের কচুকাটা করতে পারেন আফ্রিদি, তেমনই হাত ঘুরিয়েও নাচিয়ে ছাড়তে পারেন প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের। বয়স ৩৮ হয়ে গেলেও খেলাটি এখনও দারুণ উপভোগ করছেন তিনি; আমি মনে করি না;আমার ক্যারিয়ার শেষ। এখন ক্রিকেট উপভোগ করছি। ক্রিকেটের সর্বোচ্চপর্যায়ে খেলতে চাই। নির্বাচকরা এ বিষয়ে অবহিত। এখন তারাই সিদ্ধান্ত নেবেন।

‘১০২ নট আউটে’র ট্রেইলার প্রকাশ…(ভিডিও সহ)

২৭ বছর পর ‘১০২ নট আউট’ ছবির মাধ্যমে আবার একসঙ্গে পর্দায় অভিনয় করতে দেখা যাবে অমিতাভ বচ্চন ও ঋষি কাপুরকে। শুধু তাই নয়, ছবির নামানুসারে পর্দায় অমিতাভের বয়স দেখানো হবে ১০২ বছর।

অন্যদিকে ঋষি কাপুরের বয়স দেখানো হবে ৭৫ বছর এবং তাঁদের মধ্যকার সম্পর্কটা বাপ-ছেলের। তাই একসময়ের এ দুই তারকার ভিন্নধর্মী কাহিনীর এই ছবিটিকে ঘিরে ভক্তদের আগ্রহের কমতি নেই।

ভক্তদের আগ্রহকে আরো বাড়িয়ে দিতে সম্প্রতি মুক্তি দেওয়া হয়েছে ছবিটির ট্রেইলার।

দেখুন ট্রেইলার…

একই কাপে কফিতে চুমুক দেন সালমান ও ক্যাটরিনা। (ভিডিও ভাইরাল )

বলিউড টাইমস এক প্রতিবেদনে জানায়, আর এবার ফের একসঙ্গে দেখা গেল সালমান খান ও ক্যাটরিনা কাইফকে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, সাংবাদিকদের সামনে হাজির হয়ে এবার একই কাপে কফিতে চুমুক দেন সালমান ও ক্যাটরিনা। তাদের দু’জনকে যখন একই কাপে কফিতে চুমুক দিতে দেখা যায়, তখন থেকেই শুরু হয় জোর জল্পনা।

যদিও যতই জল্পনা হোক না কেন, বিষয়টি নিয়ে মুখে কুলুপ আঁটেন সালমান ও ক্যাটরিনা। কিন্তু দু’জনে মুখে কুলুপ আঁটলেও, ওই ভিডিও প্রকাশ হওয়ার পর পরই তা ভাইরাল হয়ে যায়।

এদিকে ‘টাইগার জিন্দা হ্যায়’ মুক্তির পর থেকেই রমরমিয়ে ব্যবসা করছে পরিচালক আলি আব্বাস জাফরের ওই ছবি। ‘এক থা টাইগার’-এর পর ওই ছবির সিক্যুয়েল নিয়েও দর্শকদের মধ্যে প্রত্যেশার পারদ চড়তে শুরু করে।

দেখুন ভিডিও তে

আর্জেন্টিনাকে ৬-১ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে স্পেন !!

স্পেনের সামনে দাঁড়াতেই পারলো না মেসিবিহীন আর্জেন্টিনা। সবশেষ ম্যাচে জার্মানির সঙ্গে ১-১ ড্র করা স্পেন এবার ইসকোর হ্যাটট্রিকে আর্জেন্টিনাকে ৬-১ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে। মেসির শিবির শেষ কবে এক ম্যাচে এতো গোল হজম করেছে তা-ও খুঁজে বের করতে হবে।

মঙ্গলবার রাতে ইস্তাদিও ওয়ান্ডা মেট্রোপলিটেনো মাঠে ম্যাচের ১২ মিনিটেই ডিয়েগো কস্তার গোলে লিড নেয় ২০১০ এর বিশ্বকাপজয়ীরা। ২৭ মিনিটে প্রতিপক্ষে শিবিরে আঘাত হানের ইসকো। ৩৯ মিনিটে আর্জেন্টিনার হয়ে ওটামেন্ডি গোল করলে বিরতির আগে ব্যবধান কমায় আর্জেন্টিনা।

বিরতি থেকে ফিরে যেন আরও ধারালো হয়ে ওঠে স্পেনের আক্রমণ। ৫২ মিনিজে ইসকো নিজের দ্বিতীয় গোল, ৫৫ মিনিটে থিয়াগো আলকানটারা ও ৭৩ মিনিটে লাগো অ্যাসপাস গোল করলে ৫-১ ব্যবধানে অনেকটাই জয়ের কাছে চলে যায় স্পেন।

৭৪ মিনিটে শেষ তুলির টান দিয়ে নিজের হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন ইসকো।

এর পর আর কোনও গোল না হলে ৬-১ গোলের বিশাল জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আসন্ন রাশিয়া বিশ্বকাপে ফেবারিটের তকমাধারী স্পেন।

এদিকে রাতের অপর ম্যাচে বার্লিনে জার্মানিকে ১-০ গোল হারিয়ে ৪ বছর আগের ক্ষত মুছে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছে ব্রাজিল। জয়সূচক একমাত্র গোলটি করেছেন গ্যাব্রিয়েল জেসুস।

রাতে মাঠে নামছে ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা !!

আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে রাতে মাঠে নামবে আর্জেন্টিনা ও ব্রাজিল।আর্জেন্টিনার প্রতিপক্ষ ২০১০ বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন স্পেন। আর ব্রাজিলের প্রতিপক্ষ ২০১৪ বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন জার্মানি।

ব্রাজিল-জার্মানির ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত পৌনে একটায়। যা সরাসরি সম্প্রচার করবে সনি টেন-২। আর আর্জেন্টিনা ও স্পেনের ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত ১টা ৩০টায়। এই ম্যাচটি দেখা যাবে স্কাই স্পোর্টস (ফুটবল) চ্যানেলে। ইএসপিএন ডিস্পোর্টস ও ওয়াচইএসপিএন এও দেখা যাবে।

গেল শুক্রবার রাতে রাশিয়ার বিপক্ষে ৩-০ ব্যবধানে জিতেছে ব্রাজিল। আর ইতালির বিপক্ষে ২-০ ব্যবধানে জিতেছে আর্জেন্টিনা। আগের প্রীতি ম্যাচে জার্মানির মাঠে ১-১ গোলে ড্র করেছে স্পেন।

ইনজুরিতে থাকায় নেইমার খেলছেন না ব্রাজিলের হয়ে। অন্যদিকে ইতালির বিপক্ষে দলের সঙ্গে থেকেও ইনজুরির কারণে খেলেননি লিওনেল মেসি। আজ মাঠে নামার আগে যদি তিনি পুরোপুরি ফিট থাকেন তাহলে মাঠে নামানো হবে তাকে। ২০০৬ থেকে ২০১০ পর্যন্ত স্পেনের সঙ্গে তিনটি প্রীতি ম্যাচ খেলেছে আর্জেন্টিনা। তার মধ্যে স্পেন জিতেছে ২টিতে। একটিতে জিতেছে আর্জেন্টিনা। সবশেষ ২০১০ সালে স্পেনকে ৪-১ গোলে হারিয়েছে আর্জেন্টিনা। তার আগে ২০০৬ ও ২০০৯ সালে ঘরের মাঠে আর্জেন্টিনাকে ২-১ ব্যবধানে হারিয়েছে স্পেন। আবারো সেই ঘরের মাঠে আর্জেন্টিনাকে আতিথ্য দিতে যাচ্ছে তারা। আবারো পারবে কী হারিয়ে দিতে মেসি-দিবালাদের।

অন্যদিকে ২০০২ থেকে ২০১১ পর্যন্ত জার্মানির বিপক্ষে চার ম্যাচের দুটিতে জিতেছে ব্রাজিল। একটিতে জিতেছে জার্মানি। আর অপরটি হয়েছে ১-১ গোলে ড্র। ২০১১ সালে আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে ব্রাজিলকে ৩-২ গোলে হারিয়েছে বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। তার আগে ২০০৫ সালে ফিফা কনফেডারেশন কাপে ৩-২ গোলে জার্মানিকে হারিয়েছে ব্রাজিল। ২০০৪ সালে প্রীতি ম্যাচে জার্মানি ও ব্রাজিলের ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়েছিল। তার আগে ২০০২ সালে বিশ্বকাপে জার্মানিকে ২-০ গোলে হারিয়েছিল ব্রাজিল।

অবশ্য ২০১৪ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ঘরের মাঠে ব্রাজিলকে ৭-১ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল জার্মানি। চার বছর পর আবার সেই জার্মানির মুখোমুখি সেলেকাওরা। জার্মানির ঘরের মাঠে পারবে কী তারা মুলার-ক্রুসদের হারিয়ে দিতে?

হায়দরাবাদের অধিনায়ক হচ্ছেন সাকিব..!!

বল টেম্পারিংয়ের ন্যাক্কারজনক ঘটনায় জড়িয়ে পরে আইসিসি কৃতক এক ম্যাচ নিষিদ্ধ হয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক স্মিথ। ঘটনার সাথে জড়িত সহ অধিনায়ক ওয়ার্নারকে কোন শাস্তি দেয়নি আইসিসি।স্মিথ-ব্যানক্রাপ্টদের লঘু শাস্তি দিয়ে আইসিসি ব্যাপরটা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) এর উপর ছেড়ে দিয়েছে।

ইতিমধ্যে আসন্ন ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (আইপিএল) অধিনায়কের পদ হারালেন স্মিথ। তার বদলে রাজ্যস্থান রয়্যালসের অধিনায়ক করা হয়েছে অজিঙ্কা রাহানেকে। শুধু স্মিথ নয়, গুঞ্জণ রয়েছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদের অধিনায়ক ওয়ার্নারকে তার পদ থেকে অব্যহতি দেওয়া হতে পারে।

সেক্ষেত্রে কে হবেন হায়দরাবাদের অধিনায়ক? এই রেসে অনেকটা এগিয়ে প্রথমবারের মতো হায়দরাবাদে খেলতে আসা বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের টেস্টও টি-২০ অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।

অধিনায়ক হওয়ার অন্যতম দাবীদার নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন। তবে সে হায়দরাদের হয়ে নিয়মিত একাদশে সুযোগ না পাওয়ার অলরাউন্ডার সাকিবেই এগিয়ে থাকবেন। এছাড়া আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে অভিজ্ঞতার বিচারে সাকিব ঢের এগিয়ে।

অন্যদিকে ভারতীয়দের মধ্যে শিখর ধাওয়ান ও মানিষ পান্ডের নাম শোনা গেলেও তাদের কারোই বড় মঞ্চে অধিনায়কত্ব করার নজির নেই। সেই বিচারে একাদশ আইপিএলে বাংলাদেশী অলরাউন্ডারকে হায়দরাবাদের অধিনায়ক দেখলে অবাক হবে না ক্রিকেট দুনিয়া।

ধূমপান করছে হাতি !! দেখুন হাতির এই আজব কীর্তি।(ভিডিও সহ)

জঙ্গলের মধ্যে ধোঁয়া, আর তাতে দিব্যি শুঁড় গলিয়ে ধূমপানে ব্যস্ত এক হাতি! নাগারাহোল ন্যাশনাল পার্কে হাতির এই তাক লাগানো কীর্তি ক্যামেরা বন্দি করেছে ‘ওয়াইল্ড লাইফ কনজারভেশন সোসাইটি’। ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে ধোঁয়ার মধ্যে থেকে শুঁড়ে করে কিছু তুলে নিয়ে মুখে পুরছে হাতিটি।

‘ওয়াইল্ড লাইফ কনজারভেশন সোসাইটি’র বিজ্ঞানী ড. বরুণ গোস্বামী বলছেন, কয়লার আগুন থেকে ধোঁয়া নেওয়ার চেষ্টা করছিল ওই মেয়ে হাতিটি। অনেক বিশেষজ্ঞের দাবি, চারকোল থেকে ঔষধি সংগ্রহ করার ক্ষমতা থাকে হাতির মধ্যে। আর এখানে সেই ঘটনাই সম্ভবত ঘটেছে!

দেখুন ভিডিও তে

‘মিস্টার লোনলি’ : একাকীত্বে ভূগছেন ‘ভাইজান সালমান খান’!

জীবনসঙ্গীর অভাব বোধ করছেন ৫২ বছর বয়সী বলিউড কাঁপানো এই অভিনেতা। সম্প্রতি সোশ্যাল সাইটে নিজেকে ‘মিস্টার লোনলি’ লিখে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন সালমান। এই ভিডিও থেকেই ছড়িয়েছে জল্পনা।

৫২ বছর বয়সেও বলিউডের ‘মোস্ট এলিজিবল ব্যাচেলর’ তিনি। কোটি কোটি তরুণী তার জন্য পাগল। ঐশ্বরিয়া থেকে ক্যাটরিনা- বলিউডের বহু নায়িকার সঙ্গেই নাম জড়িয়েছে সালমান খানের। সম্পর্ক তৈরি হয়েছে, আবার ভেঙেছেও। তবে শেষ পর্যন্ত বিয়েটা আর করা হয়ে উঠেনি। সে কারণেই কি সালমান কোনওভাবে একাকীত্বে ভুগছেন?

ভিডিওতে খালি গায়ে সালমানকে একটি ‘মিস্টার লোনলি’ গানের সঙ্গে স্টেজ পারফরম্যান্স করতে দেখা যাচ্ছে। সালমান যখন পারফর্ম করছেন তখন পাশ থেকে ভেসে আসছে অগণিত নারী ভক্তের চিৎকার। তাতেই বোঝা যাচ্ছে সালমানকে নিয়ে মেয়েদের মধ্যে কতটা উন্মাদনা রয়েছে। একসময় সালমানের এই শার্টলেস পারফরম্যান্স বহু মেয়েদের মনে ঝড় তুলেছিল।

মাহিরা খানের নতুন ছবি ‘সাত দিন মোহাব্বাত ইন’ এর ফার্স্ট লুক প্রকাশ !!

নিজ দেশ পাকিস্তানে মুক্তি পেতে যাচ্ছে তাঁর অভিনীত রোমান্টিক কমেডি ড্রামা ‘সাত দিন মোহাব্বাত ইন’। ছবিতে তাঁর বিপরীতে আছেন শেহরিয়ার মুনাওয়ার।

মাহিরা যে চরিত্রে রূপ দান করবেন সেটির নাম ‘নীলি’। আর এই নীলি চরিত্রটি কেমন হবে তাঁরই একটি লুক সম্প্রতি নিজের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে ভক্তদের জন্য শেয়ার করেছেন এই প্রতিভাবান পাকিস্তানি অভিনেত্রী।

ছবিতে টিপুর (শেহরিয়ার মুনাওয়ার) কাজিন এবং খুব ভালো বন্ধু নীলি। নীলি খুব আকর্ষণীয় এবং উদ্যমী এক তরুণী। যে তার স্বপ্নের রাজ্যে বসবাস করে। এটি একটি নির্ভেজাল রোমান্টিক কমেডি ছবি।

প্রতিভাবান পাকিস্তানি পরিচালক জুটি মেনু গৌর আর ফারজাদ নবী’র সাথে চিত্রনাট্যে আছেন ফাসিহ বারী খান। রানা কামরান এর সিনেমাটোগ্রাফিতে নির্মিত ছবিটি প্রডাকশনে আছে ডন ফিল্মস। ছবিটি ঈদুল ফিতর উপলক্ষে বিশ্বব্যাপী মুক্তি পাবে।
সূত্র : ডিএনএ

বিশ্ব-নবীজির জানাজার ইতিহাস যা আজও অজানা ! জেনে নিন সম্পূর্ণ ঘটনা !!

ইবনে মাজাহ শরিফে হজরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস রা. বলেন, মঙ্গলবার সাহাবায়ে কেরাম রাসুলে কারিম সা.-এর গোসল ও কাফনের কাজ শেষ করেন। নবীজির দেহ মোবারক রওজার পাশে রাখেন। সাহাবারা দল দলে নবীজির কাছে আসতে থাকেন। কারও ইমামতিতে নয়; সবাই একা একা নামাজ ও দুরুদ শেষে বেরিয়ে যান। (ইবনে মাজাহ) অন্য কিতাবে আছে, রাসুল সা.-এর ইন্তেকাল এর আগে সাহাবিরা নবীজির দরবারে আসলেন।

সাহাবাদের দেখেনবীজির চোখে বেদনার জল। নবীজি বললেন, আমি তোমাদের আল্লাহর কাছে সোপর্দ করছি, আল্লাহ তোমাদের সঙ্গী হবে। হজরত আবদুল্লাহ ইবনে মাসউদ রা. জানতে চাইলেন, হে আল্লাহর রাসুল সা.! আপনার যাওয়ার সময় খুব নিকটে চলে এসেছে, আপনার ইন্তেকালের পর আপনাকে কে গোসল দিবে? রাসুল সা. বললেন, আমার আহলে বাইত মানে আমার পরিবারের সদস্যরা। আবদুল্লাহ ইবনে মাসউদ আবার জানতে চাইলেন, কে আপনাকে কাফন পরাবে? রাসুল সা. বললেন, আমার আহলে বাইত।

আবদুল্লাহ ইবনে মাসউদ আবার জানতে চাইলেন কে আপনাকে কবরে নামাবে? রাসুল সা. বললেন, আমার আহলে বাইত। আবদুল্লাহ ইবনে মাসউদ আবার জানতে চাইলেন কে আপনার জানাজা কে পড়াবে? তখন রাসুল সা.-এর চোখ বেয়ে বেদনার জল নেমে এলো। তিনি বললেন, তোমাদের নাবীর জানাজা এমন হবে না, যেমন তোমাদের হয়। যখন আমার গোসল হয়ে যাবে তখন তোমরা সবাই ঘর থেকে বের হয়ে যাবে। সবার আগে জিবরাইল আমার জানাজা পড়বে। তারপর মিকাঈল ও ই¯্রাফিল ধারাবাহিকভাবে আরশের অন্যান্য ফেরেশতারা আসবে ও আমার জানাজা পড়বে। তারপরে তোমাদের পুরুষরা, নারীরা এবং শিশুরা আমার জন্য দোয়া ও সালাম পড়বে। অতঃপর তোমরা আমাকে আল্লাহর সোপর্দ করে দিবে। (আলবিদায়া ওয়ান নিহায়া-৫/২২২, দালায়েলুন নবুয়্যাহ লিলবায়হাককি) নবীজি সা.-এর জানাজা বিষয়ে আরো দীর্ঘ হাদিস পাওয়া যায় তিরিমিজি শরিফে। সাহাবি হজরত সালেম বিন ওবায়েদ রা. বলেন, আমি প্রথমে হজরত আবু বকর সিদ্দিক রা. কে রাসুলে কারিম সা.-এর ইন্তেকালের সংবাদ দিই । তখন আবু বকর সিদ্দিক রা. আমাকে বললেন, তুমি আমার সঙ্গে ভেতরে আসো । সাহাবি হজরত সালেম বিন ওবায়েদ রা. বলেন, হজরত আবু বকর রা. যখন রাসুলের নিকট যেতে চাইলেন, তখন চারপাশে মানুষের প্রচন্ড- ভিড় ।

হজরত আবু বকর রা. লোকদের বললেন, তোমরা আমাকে সামান্য রাস্তা দাও ! লোকেরা ভেতরে যাওয়ার পথ করে দিল ! তিনি ভেতরে গেলেন, মাথা নুইয়ে কাছে গিয়ে নবীজি সা. কে দেখলেন । নবীজির পবিত্র কপালে হজরত আবু বকর রা. চুমু খেলেন । তারপর কোরআনের আয়াত পড়লেন, যার অর্থ হলো, নিশ্চয় তুমিও ইন্তেকাল করবে এবং তারাও ইন্তেকাল করবে । হজরত আবু বকর রা. বেরিয়ে এলে; লোকেরা জানতে চাইলেন, ওগো নবীজির বন্ধু ! নবীজি কি ইন্তেকাল করেছেন ? হজরত আবু বকর রা. বললেন, হ্যা ।

তখন লোকেরা নবীজির ইন্তেকালের খবর দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করলো । তারপর সাহাবায়ে কেরাম হজরত আবু বকর রা. কে জিজ্ঞেস করলেন, ওগো নবীজির বন্ধু ! নবীজির কি জানাজার নামাজ পড়া হবে ? তিনি বললেন, হ্যা । জিজ্ঞাসা করা হল, কিভাবে ? হজরত আবু বকর রা. বললেন, এভাবে যে, এক এক জামাত নবীজির ঘরে প্রবেশ করবে এবং জানাজা পড়ে বেরিয়ে আসবে । তারপর অন্য জামাত প্রবেশ করবে । সাহাবারা হজরত আবু বকর রা. কে জিজ্ঞাসা করলেন, নবীজিকে কি দাফন করা হবে ? তিনি বললেন, জি । জিজ্ঞাসা করা হল, কোথায় ? তিনি বললেন, যেখানে আল্লাহ তায়ালা নবীজির রূহ কবজ করেছেন সেখানেই । কেননা, আল্লাহ তায়ালা নিশ্চয় নবীজিকে এমন স্থানে মৃত্যু দান করেছেন যে স্থানটি উত্তম ও পবিত্র । সাহাবারা দৃঢ়ভাবে মেনে নিলেন হজরত আবু বকর রা.-এর কথা ।

হজরত আবু বকর রা. নিজেই নবীজির আহলে বায়াত তথা রাসুলের পরিবার ও বংশের মানুষদের ডেকে গোসল নির্দেশ দেন । (সূত্র : শামায়েলে তিরমিজি, হাদিস : ৩৭৯, ৩৯৭, শরফুল মুস্তফা, বর্ণনা নং-৮৫০, আল আনওয়ার ফি শামায়িলিন নাবিয়্যিল মুখতার, বর্ণনা নং-১২০৯) ইমাম শাফি রহ. এবং কাজি ইয়াজ রা. বলেন, নবীজি সা.-এর জানাজা পড়া হয়েছে । কিতাবুল উম্মু/ সিরাতে মস্তুফা/৩য় খ-: ২৩৫ পুনশ্চ : নবীজির জানাজা হয়েছে । সাহাবারা একা একা পড়েছেন । কেউ ইমামতি করেননি । তবে তাবাকাতে ইবনে সাদের বরাতে বলা হয়, হজরত আবু বকর ও ওমর রা. এক সঙ্গে নবীজি সা.-এর ঘরে উপস্থিত হন । নবীজির দেহ মোবরক সামনে রেখে নামাজ-সালাম ও দুরুদ পেশ করেন । দীর্ঘ দোয়ার সময় পেছনে সারিবদ্ধ সাহাবিরা আমিন আমিন বলেছেন ।
(আল বিদায়া ওয়ান নিহায়া : ৫ম খ-: ২৬৫)